শুক্রবার, ৩ ফেব্রুয়ারি ২০২৩ খ্রিস্টাব্দ, ২০ মাঘ ১৪২৯ বঙ্গাব্দ, ১১ রজব ১৪৪৪ হিজরি
শুক্রবার, ৩ ফেব্রুয়ারি ২০২৩ খ্রিস্টাব্দ

কথিত চিকিৎসক দিয়ে সুন্নতে খাৎনা করতে গিয়ে শিশুর পুরুষাঙ্গহানী

কথিত চিকিৎসক দিয়ে সুন্নতে খাৎনা করতে গিয়ে শিশুর পুরুষাঙ্গহানী
অসুস্থ্য শিশুকে নিয়ে মা-বাবা শরীয়তপুরে একটি ক্লিনিকে বসে আছেন। ছবি-দৈনিক হুংকার।

কথিত এক চিকিৎসক দিয়ে সুন্নতে খাৎনা করাতে গিয়ে পুরুষাঙ্গ হারাতে বসেছে শিশুটি। চিকিৎসক পরিচয়ে শিশুটির সুন্নতে খাৎনা করতে গিয়ে পুরুষাঙ্গের অগ্রভাগের চামড়াসহ পুরুষাঙ্গের অগ্রভাগ কেঁটে নিয়েছে। এই ঘটনার পর থেকে শিশুটির বাবা-মা সহ কথিত ওই চিকিৎসক বিপাকে পড়েছেন। শিশুটির জীবন বাঁচাতে হন্নে হয়ে বিভিন্ন হাসপাতাল ও ক্লিনিকে ঘুরছেন কথিত ওই চিকিৎসক ও তার বাবা-মা। বুধবার বেলা ১১টার দিকে শরীয়তপুর সদর উপজেলার আঙ্গারিয়া বাগচী বাজারে কথিত ওই ডাক্তারের চেম্বারে এই ঘটনা ঘটে।
ক্ষতিগ্রস্থ শিশুটির বাবা মো. ইউসুব হাওলাদর ও মা তানিয়া জানায়, ১৪ অক্টোবর বুধবার সকালে তাদের ১০ মাস বয়সী পুত্র বায়েজিদ হাসানকে সুন্নতে খাৎনা করানোর জন্য ডা. আলম নামের ওই কথিত চিকিৎসকের কাছে নিয়ে যায়। চিকিৎসক আলম কোন কিছু না বুঝেই ওই শিশুর পুরুষাঙ্গের অগ্রভাগের চামড়াসহ পুরুষাঙ্গের অগ্রভাগ কেঁটে ফেলে। তখন শিশুটির পুরুষাঙ্গের ক্ষত জায়গা থেকে ফিনকি দিয়ে রক্ত বের হতে থাকে। মুহুর্তেই শিশুটি নিস্তেজ হয়ে যায়। পরবর্তীতে ওই চিকিৎসক শিশুটির বাবা-মা সহ শিশুটিকে নিয়ে শরীয়তপুর শহরের বিভিন্ন ক্লিনিকে ধরণা ধরছেন।
কথিত চিকিৎসক আলম দেওয়ান বলেন, চিকিৎসার উপর ডিপ্লোমা ডিগ্রী নিয়েছি। শিশুটির পুরুষাঙ্গের মাথায় একটা গোটার মতো ছিল। সুন্নতে খাৎনা করার সময় সেই গোটাটা কেটে গেছে। এটা গুরুতর তেমন সমস্যা না। শিশুটিকে এমবিবিএস ডাক্তারের কাছে নিয়ে এসেছি। চিকিৎসা করলে ভালো হয়ে যাবে।

সংবাদটি শেয়ার করুন

দৈনিক হুংকারে প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।


error: দৈনিক হুংকারে প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।