শুক্রবার, ২২শে জানুয়ারি, ২০২১ খ্রিস্টাব্দ, ৮ই মাঘ, ১৪২৭ বঙ্গাব্দ, ৯ই জমাদিউস সানি, ১৪৪২ হিজরি
শুক্রবার, ২২শে জানুয়ারি, ২০২১ খ্রিস্টাব্দ

সুরেশ্বরে অগ্নিকান্ডে ১৬টি দোকান ও বসত বাড়ি পুড়ে গেছে

সুরেশ্বরে অগ্নিকান্ডে ১৬টি দোকান ও বসত বাড়ি পুড়ে গেছে
সুরেশ্বর বাজারে আগুন নিয়ন্ত্রণে কাজ করছে শরীয়তপুর ফায়ার সার্ভিস। ছবি-দৈনিক হুংকার

শরীয়তপুর জেলার নড়িয়া উপজেলার সুরেশ্বর লঞ্চঘাট বাজারে এক ভয়াবহ অগ্নিকান্ডে ব্যাপক ক্ষয়ক্ষতি হয়েছে। এতে অন্তত ১৬টি ব্যবসা প্রতিষ্ঠান এবং ২টি বসত ঘর ভষ্মিভূত হয়েছে। বেলা ১১টার সময় একটি ডিজেল-পেট্রোলের দোকান থেকে আগুনের সূত্রপাত হয় বলে জানিয়েছে শরীয়তপুর ফায়ার সার্ভিস কর্তৃপক্ষ। স্থানীয়দের সহায়তায় প্রায় দেড় ঘন্টার চেষ্টায় আগুন নিয়ন্ত্রনে আনে ফায়ার সার্ভিস। অগ্নিকান্ডে অন্তত ২ কোটি টাকার ক্ষতি হওয়ার খবর প্রাথমিকভাবে জানা গেছে।

শরীয়তপুর ফায়ার সার্ভিস ও স্থানীয় সূত্রে জানা যায়, আজ (সোমবার) বেলা ১১টার দিকে জেলার সুরেশ্বর লঞ্চঘাট এলাকার বাজারে একটি ডিজেল-পেট্রোলের দোকান থেকে আগুনের সূত্রপাত হয়। ১১:১৫ টার সময় ২৫ কিমি দুরে শরীয়তপুর ফায়ার সার্ভিসকে খবর দিলে ১১:৫০ টার সময় ফায়ার সার্ভিসের একটি ইউনিট ঘটনাস্থলে পৌঁছান। এর আগে স্থানীয়রা বালতিতে পানি ভরে আগুন নেভানোর চেষ্টা করেন। দেড় ঘন্টার চেষ্টায় ফায়ার সার্ভিস আগুন সম্পূর্ন নিয়ন্ত্রনে আনেন।
স্থানীয় বাসিন্দা নজরুল ইসলাম জানান, কাশেম বাবুর্চির ৩টি মুদি দোকান, বোরহান বাবুর্চির ৪টি দোকান, মন্টু মিয়ার কনফেকশনারীর দোকান, মোর্শেদ পালের হার্ডওয়ারের দোকান, দেলোয়ার হোসেনের ক্রোকারিজের দোকান, নজরুল ইসলামের স্যানিটারি আইটেমের দোকান সহ মোট ১৬টি ব্যবসা প্রতিষ্ঠান সম্পূর্নভাবে ভষ্মিভূত হয়ে যায়। এছাড়াও বাজারের ব্যবসায়ী আমান উল্লাহ দেওয়ানের ৩টি দোকান সহ বাজারের পাশে দুইটি বসত ঘর আগুনে পুড়ে যায়। তিনি জানান, আগুনে প্রায় দুই কোটি টাকার ক্ষয়ক্ষতি হয়েছে।

শরীয়তপুর ফায়ার সার্ভিসের উপ-সহাকারি পরিচালক মোঃ সেলিম মিয়া বলেন, আগুন লাগার খবর পেয়ে প্রায় ২৫ কিমি দুরুত্বে আমরা মাত্র ৩৫ মিনিট সময়ে পৌঁছাই। স্থানীয়দের সহায়তায় আমাদের একটি ইউনিট দেড় ঘন্টার চেষ্টায় আগুন সম্পূর্ন নিয়ন্ত্রনে আনতে সক্ষম হই। তিনি আরো বলেন, আমরা যতটুকু জেনেছি, তাতে ধারণা করছি একটি ডিজেল-পেট্রোলের দোকান থেকে আগুনের সূত্রপাত হয়েছে।


error: দৈনিক হুংকারে প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।