শনিবার, ৫ই ডিসেম্বর, ২০২০ খ্রিস্টাব্দ, ২০শে অগ্রহায়ণ, ১৪২৭ বঙ্গাব্দ, ২০শে রবিউস সানি, ১৪৪২ হিজরি
শনিবার, ৫ই ডিসেম্বর, ২০২০ খ্রিস্টাব্দ

১২তম দিনে ভেদরগঞ্জে প্রায় ৫২ জেলে আটক, স্পিডবোট, জাল ও নৌকা জব্দ

১২তম দিনে ভেদরগঞ্জে প্রায় ৫২ জেলে  আটক, স্পিডবোট, জাল ও নৌকা জব্দ
ভেদরগঞ্জে মা ইলিশ শিকারের দায়ে আটককৃত জেলে। ছবি-দৈনিক হুংকার।

রাতদিন পরিশ্রম করেও ইলিশের প্রধান প্রজনন মৌসুমে থামাতে পারছেনা মা ইলিশ শিকার। ভেদরগঞ্জ উপজেলা নির্বাহী অফিসার তানভীর-আল-নাসীফ ও উপজেলা সিনিয়র মৎস্য অফিসার মোঃ নজরুল ইসলাম এর নেতৃত্বে গত ২৪ অক্টোবর সন্ধা ৬টা থেকে ২৫ অক্টোবর সকাল ৮টা পর্যন্ত উপজেলা প্রশাসন, মৎস্য বিভাগ ও সখিপুর থানা পুলিশ যৌথ অভিযান চালিয়ে ভেদরগঞ্জ উপজেলার পদ্মানদী থেকে ৫২ জেলে, ১টি স্পিড বোট, ৩টি ইঞ্জিন চালিত নৌকা, ৬০ হাজার মিটার কারেন্ট জাল ও ২৫ কেজি মা ইলিশ জব্দ করেছে।
ভেদরগঞ্জ উপজেলা নির্বাহী অফিসার তানভীর আল নাসীফ বলেন, বৈরী আবহাওয়া উপেক্ষা করে জাতীয় সম্পদ মা ইলিশ রক্ষার অভিযানে অংশ নিয়ে সখিপুর থানা পুলিশ ও উপজেলা মৎস্য বিভাগের সহযোগিতায় গত রাতে ভেদরগঞ্জ উপজেলার পদ্মানদী থেকে ৫২ জন জেলে, ১টি স্পিড বোট, ৩টি ইঞ্জিন চালিত নৌকা, ৬০ হাজার মিটার কারেন্ট জাল ও ২৫ কেজি মা ইলিশ জব্দ করেছি।
শরীয়তপুর জেলা মৎস্য কর্মকর্তা মো. আব্দুর রউফ জানিয়েছেন, জেলার জাজিরা, নড়িয়া, ভেদরগঞ্জ এবং গোসাইরহাট উপজেলার ১৯ হাজার জেলেকে ২০ কেজি করে মোট ৩৮০ মেট্রিক টন চাল সহায়তা দেয়া হয়েছে। তার পরেও অনেক জেলে আইন অমান্য করে মাছ ধরতে নদীতে নামছে। শুধু শরীয়তপুর জেলারই নয়, বাইরের জেলার অনেক জেলেও আমাদের জেলার নৌ সীমানায় প্রবেশ করে মা ইলিশ শিখারের সময় আটক হচ্ছে। আমরা প্রশাসনের সহায়তায় বাকি দিন গুলিও অভিযান অব্যাহত রাখবো।


error: দৈনিক হুংকারে প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।