শুক্রবার, ৩ ফেব্রুয়ারি ২০২৩ খ্রিস্টাব্দ, ২০ মাঘ ১৪২৯ বঙ্গাব্দ, ১১ রজব ১৪৪৪ হিজরি
শুক্রবার, ৩ ফেব্রুয়ারি ২০২৩ খ্রিস্টাব্দ

প্রশাসনে উদ্যোগে খাল খনন শুরু, তিন ফসলী হবে ৬০ একর জমি

ভেদরগঞ্জে খাল খনন কাজ পরিদর্শন করছেন উপজেলা নির্বাহী অফিসার আব্দুল্লাহ আল মামুন। ছবি-দৈনিক হুংকার।

এক ইঞ্চি জমিও অনাবাদি রাখা যাবে না মর্মে প্রধানমন্ত্রীর ঘোষণা বাস্তবায়নে শরীয়তপুর জেলা প্রশাসক মোঃ পারভেজ হাসান এর নির্দেশে ভেদরগঞ্জ উপজেলা পরিষদের অর্থায়নে প্রায় ৬০ একর জমির জলাবদ্ধতা নিরশনে খাল খনন শুরু করেছে।
বুধবার (৪ ডিসেম্বর) ভেদরগঞ্জ উপজেলার মহিষার ইউনিয়নের মির্জাপুর সিকদার বাড়ির সামনে থেকে স্বর্ণিভর ব্রীজ পর্যন্ত খনন কাজের শুভ উদ্বোধন করেন ভেদরগঞ্জ উপজেলা নির্বাহী অফিসার আব্দুল্লাহ আল মামুন। এ সময় তার সাথে ছিলেন ভেদরগঞ্জ থানা অফিসার ইনচার্জ বাহালুল খান বাহার, মহিষার ইউনিয়ন পরিষদ চেয়ারম্যান হাজি মোঃ অরুন হাওলাদার, সাজনপুর ইসলামিয়া উচ্চ বিদ্যালয়ের সভাপতি ও ভেদরগঞ্জ উপজেলা কৃষক লীগ সাধারণ সম্পাদক হাজি ফিরোজ হোসেন খানসহ স্থানীয় গন্যমান্য ব্যক্তিবর্গ।
ভেদরগঞ্জ উপজেলা নির্বাহী অফিসার আব্দুল্লাহ আল মামুন বলেন, শরীয়তপুর জেলা প্রশাসকের ত্বরিত দিকনির্দেশনা ও তাগিদ অনুযায়ী ভেদরগঞ্জ উপজেলার মির্জাপুর গ্রামের এ খালটিতে স্থানীয় লোকজন তাদের ইচ্ছামতো দখল করে বাধ দেয়। ফলে দীর্ঘদিন যাবৎ প্রায় ৬০ একর জমি জলাবদ্ধ হয়ে ছিল। খালটি মুক্ত হলে নতুন করে প্রায় অর্ধশত একর জমি প্রায় বিশ বছর পর নতুন করে চাষের আওতায় আসবে। এর ফলে অচিরেই এই বিস্তৃন্ন এলাকায় বছরে তিন ফসল ফলানোর সম্ভাবনা সৃষ্টি হতে যাচ্ছে। জেলা ও উপজেলা প্রশাসনের এই জনবান্ধব উদ্যোগে ভীষণ খুশি স্থানীয় জমির মালিক ও কৃষকগণ।

সংবাদটি শেয়ার করুন

দৈনিক হুংকারে প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।


error: দৈনিক হুংকারে প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।