শনিবার, ৩ ডিসেম্বর ২০২২ খ্রিস্টাব্দ, ১৮ অগ্রহায়ণ ১৪২৯ বঙ্গাব্দ, ৮ জমাদিউল আউয়াল ১৪৪৪ হিজরি
শনিবার, ৩ ডিসেম্বর ২০২২ খ্রিস্টাব্দ

ভেদরগঞ্জে ফায়ার সার্ভিস ও সিভিল ডিফেন্স সপ্তাহের উদ্বোধন

ভেদরগঞ্জে ফায়ার সার্ভিস ও সিভিল ডিফেন্স সপ্তাহের উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে বক্তব্য উপজেলা নির্বাহী অফিসার আব্দুল্লাহ আল মামুন। ছবি-দৈনিক হুংকার।

‘দুর্ঘটনা-দুর্যোগ হ্রাস করি, বঙ্গবন্ধুর সোনার বাংলা গড়ি’ প্রতিপাদ্যকে সামনে রেখে সারা দেশের ন্যায় ভেদরগঞ্জে শুরু হয়েছে ফায়ার সার্ভিস ও সিভিল ডিফেন্স সপ্তাহ-২০২২।
মঙ্গলবার (১৫ নভেম্বর) দিনটি উপলক্ষে সকালে ভেদরগঞ্জ উপজেলা ফায়ার সার্ভিস স্টেশন কমপ্লেক্সে বিভিন্ন অনুষ্ঠানের আয়োজন করা হয়। প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত থেকে ফায়ার সার্ভিস ও সিভিল ডিফেন্স সপ্তাহের উদ্বোধন করেন উপজেলা নির্বাহী অফিসার আব্দুল্লাহ আল মামুন।
ভেদরগঞ্জ উপজেলা ফায়ার সার্ভিস স্টেশনের স্টেশন অফিসার জি এম আমির হোসেন এর সভাপতিত্বে অনুষ্ঠানে বিশেষ অতিথি ছিলেন উপজেলা সহকারি কমিশনার (ভূমি) মোঃ ইমামুল হাফিজ নাদিম, উপজেলা কৃষি অফিসার কৃষিবিদ ফাতেমা ইসলাম, ভেদরগঞ্জ থানা অফিসার ইনচার্জ মোঃ বাহালুল খান বাহার। মাস্টার মোঃ সালাহ্ উদ্দিন এর সঞ্চালনায় আলোচনা সভায় বক্তব্য রাখেন ভেদরগঞ্জ বাজার বনিক সমিতি সভাপতি আলহাজ্ব সফিউল্লাহ মাতাব্বর, সাধারণ সম্পাদক রাজন হাওলাদার, সাংবাদিক আবুল বাশার।
অগ্নিনির্বাপণ ও নানা দুর্যোগে দায়িত্ব পালন করা সংস্থাটি বুধবার (১৫ নভেম্বর থেকে ১৭ নভেম্বর) পর্যন্ত তিন দিনের ‘ফায়ার সপ্তাহ-২০২২’ ঘোষণা করা হয়েছে। উপজেলা পর্যায়ে ফায়ার স্টেশনে সচেতনতামূলক নানা অনুষ্ঠানের আয়োজন করা হয়েছে।
সেবা সপ্তাহ উপলক্ষে গত এক বছরে সাহসিকতাপূর্ণ ও সেবামূলক ভালো কাজের জন্য ফায়ার সার্ভিসের সদস্যদের পদক দেয়া হবে।
প্রধান অতিথির বক্তব্যে উপজেলা নির্বাহী অফিসার আব্দুল্লাহ আল মামুন বলেন, ফায়ার সার্ভিস ও সিভিল ডিফেন্স সপ্তাহ উপলক্ষ্যে আমি আমার উপজেলার ফায়ার সার্ভিস ও সিভিল ডিফেন্স এর সকল কর্মকর্তা-কর্মচারীকে জানাই আন্তরিক শুভেচ্ছা ও অভিনন্দন। ফায়ার সার্ভিস ও সিভিল ডিফেন্স সপ্তাহ উপলক্ষে আয়োজিত বিভিন্ন অনুষ্ঠান জনগণের সাথে এ বিভাগের কর্মীদের ঘনিষ্ঠতা ও পারস্পরিক যোগাযোগ আরও বৃদ্ধিতে সহায়ক ভূমিকা রাখবে বলে আমার বিশ্বাস।’
‘আমি আশা করি, ফায়ার সার্ভিস ও সিভিল ডিফেন্স-এর কর্মীরা নতুন উদ্যমে সাহস, সততা, দক্ষতা ও নিষ্ঠার সঙ্গে দায়িত্ব পালন করবেন এবং নিরাপদ বাংলাদেশ গড়ার অঙ্গিকার বাস্তবায়নের মাধ্যমে সর্বকালের সর্বশ্রেষ্ঠ বাঙালি, জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের স্বপ্নের ‘সোনার বাংলাদেশ’ গড়ে তুলতে সক্ষম হব ইনশাহআল্লাহ। তিনি আরো বলেন, আমাদের মাননীয় সংসদ সদস্যের পিতা জাতীয় বীর, সাবেক মন্ত্রী মরহুম আব্দুর রাজ্জাক সাহেব বেঁচে থাকতেই ডামুড্য ও গোসাইরহাটে ফায়ার সার্ভিস স্টেশন স্থাপন করে গেছেন। তার মৃত্যুর পরে তার সুযোগ্য সন্তান আলহাজ্ব নাহিম রাজ্জাক এমপি মহোদ্বয় তার পিতার অসমাপ্ত কাজের অংশ হিসেবে এ স্টেশনটি স্থাপন করেন। যা গত বছর ডিসেম্বরে পানি সম্পদ উপমন্ত্রী একেএম এনামুল হক শামীম ও নাহিম রাজ্জাক আনুষ্ঠানিক ভাবে উদ্বোধন করে ছিলেন। তারা প্রায় এক বছরে ২৭টি অগ্নি দুর্ঘটনা মোকাবেলা করেছেন। সিত্রাং মোকাবেলায় সাহসিকতার জন্য সম্মাননা লাভ করেছে।

সংবাদটি শেয়ার করুন

দৈনিক হুংকারে প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।


error: দৈনিক হুংকারে প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।