বুধবার, ২রা ডিসেম্বর, ২০২০ খ্রিস্টাব্দ, ১৭ই অগ্রহায়ণ, ১৪২৭ বঙ্গাব্দ, ১৭ই রবিউস সানি, ১৪৪২ হিজরি
বুধবার, ২রা ডিসেম্বর, ২০২০ খ্রিস্টাব্দ
প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা বলেছেন

সঠিক মানুষকে ত্রাণ সামগ্রী পৌঁছে দিন: প্রধানমন্ত্রী

সঠিক মানুষকে ত্রাণ সামগ্রী পৌঁছে দিন: প্রধানমন্ত্রী

প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা বৃহস্পতিবার তার দলীয় নেতা-কর্মীদের পাশাপাশি জনপ্রতিনিধিদেরকে রাজনৈতিক সম্পর্ক নির্বিশেষে সারাদেশের অভাবী মানুষের মাঝে ত্রাণ সামগ্রী সরবরাহ করার নির্দেশ দিয়েছেন।

তিনি বলেন, ‘কে আমার ভোটার বা কে আমার ভোটার নয় সেটি বিবেচনা করবেন না। যেসব সাধারণ জনগণ সমস্যায় রয়েছেন তাদের তালিকাভুক্ত করতে হবে। বাংলাদেশ আওয়ামী লীগ জনগণের জন্য কাজ করে। কে কোন দলের তা বিবেচনা করার দরকার নেই।’

প্রধানমন্ত্রীর সরকারি বাসভবন গণভবন থেকে ভিডিও কনফারেন্সের মাধ্যমে ঢাকা বিভাগের অন্তর্ভুক্ত ৯টি জেলার সরকারি কর্মকর্তা ও জনপ্রতিনিধিদের সাথে কথা বলার সময় প্রধানমন্ত্রী এ নির্দেশনা দেন।

৯টি জেলা হচ্ছে- ঢাকা, নারায়ণগঞ্জ, মুন্সীগঞ্জ, নরসিংদী, ফরিদপুর, রাজবাড়ী, শরীয়তপুর, মাদারীপুর ও গোপালগঞ্জ।

শেখ হাসিনা বলেন, ‘আরও ৫০ লাখ মানুষকে রেশন কার্ড সরবরাহের জন্য তালিকাভুক্ত করা হবে, যাতে তারা ১০ টাকার কেজি দরের চাল পেতে পারে। বর্তমানে ৫০ লাখ মানুষের কাছে ১০ টাকা কেজি দরের চাল পাওয়ার জন্য রেশন কার্ড রয়েছে। আমরা আরও ৫০ লাখ মানুষের জন্য জন্য রেশন কার্ড প্রস্তুত করার সিদ্ধান্ত নিয়েছি। সরকার সকল শ্রেণি-পেশার মানুষকে সহায়তা প্রদান করে।’

আওয়ামী লীগের সভানেত্রী শেখ হাসিনা তার দলের নেতা-কর্মীদের প্রত্যেক ওয়ার্ড, ইউনিয়ন, উপজেলা ও জেলা পর্যায়ে পৃথক ত্রাণ বিতরণ কমিটি গঠনের নির্দেশ দিয়ে বলেন, প্রশাসনকে দরিদ্র মানুষের মাঝে ত্রাণ দিতে সহায়তা করতে হবে।

‘আমাদের প্রশাসন ও পুলিশ তালিকা তৈরির জন্য রয়েছে। আপনারাও (দলীয় নেতা-কর্মী) তালিকা তৈরি করবেন এবং তাদের (প্রশাসন ও পুলিশ) সহায়তা করবেন, যাতে কেউ বাদ না পড়ে এবং ত্রাণ ও সাহায্য সামগ্রী সঠিক মানুষের কাছে পৌঁছায়,’ যোগ করেন তিনি।

করোনাভাইরাস মহামারির ফলে সৃষ্ট সংকটের সময়ে সঠিক লোকদের কাছে ত্রাণ ও অন্যান্য সহায়তা পৌঁছে দিতে স্থানীয়দের সম্পৃক্ত করতে প্রশাসনকে নির্দেশনা দেন তিনি।

ত্রাণ বিতরণে কোনো প্রকার অনিয়ম ও দুর্নীতি সহ্য করা হবে না বলে আবারও সতর্ক করেন প্রধানমন্ত্রী।

প্রধানমন্ত্রীর মুখ্য সচিব ডা. আহমদ কায়কাউসের সঞ্চালনায় অনুষ্ঠানে মন্ত্রিপরিষদ সচিব খন্দকার আনোয়ারুল ইসলাম এবং অন্যান্য উচ্চপদস্থ কর্মকর্তারা উপস্থিত ছিলেন।


error: দৈনিক হুংকারে প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।