মঙ্গলবার, ৩রা আগস্ট, ২০২১ খ্রিস্টাব্দ, ১৯শে শ্রাবণ, ১৪২৮ বঙ্গাব্দ, ২৪শে জিলহজ, ১৪৪২ হিজরি
মঙ্গলবার, ৩রা আগস্ট, ২০২১ খ্রিস্টাব্দ

আজ বিশ্ব বাবা দিবস

আজ বিশ্ব বাবা দিবস
আজ বিশ্ব বাবা দিবস

প্রবাদ আছে “মা সন্তানকে ধারণ করে পেটে, আর বাবা সন্তানকে ধারণ করে মস্তিস্কে” একটি পরিবারের জন্য বাবা বটবৃক্ষ, বাবার অভাব তখনই বুঝা যায় যখন বাবা তার সংসারে থাকেনা। বাবার স্নেহ, মমতা আর ভালবাসার তুলনা হয়না।
ধারণা করা হয় বাবা দিবস ১৯০৮ সালের ৫ই জুলাই প্রথম পালিত হয়। আমেরিকার পশ্চিম ভার্জেনিয়ার ফেয়ারমন্টের এক গির্জায় এই দিনটি প্রথম উদ্যাপিত হয়। আবার বলা হয়ে থাকে, আরকানসাসে জন্মগ্রহণকারী নারী সনোরা স্মার্ট ডড ১৯১০ সালে ওয়াশিংটনের স্পোকানের ওয়াইএমসিএ-তে প্রথম বাবা দিবস পালনের উদ্যোগ নেন। ডডের মাথায় বাবা দিবসের এই আইডিয়া আসে ১৯০৯ সালে। গির্জার এক পুরোহিতের বক্তব্য থেকে তিনি এই আইডিয়া পান। সেই পুরোহিত তার মা কে নিয়ে অনেক ভালো আইডিয়া ও পরিকল্পনার কথা বলছিলেন। তখন তার মনে হয়, তাহলে বাবাদের নিয়েও তো কিছু করা যায়। ডড তার বাবাকে খুব ভালবাসতেন। এরপর তিনি সম্পূর্ণ নিজ উদ্যোগেই পরের বছর, অর্থাৎ ১৯ শে জুন, ১৯১০ সাল থেকে বাবা দিবস পালন করেন। তবে প্রথম দিকে বাবা দিবস একটু নীরবেই পালিত হতো কারণ মা দিবস নিয়ে মানুষ যতটা উৎসাহ দেখাতো বাবা দিবসে তা মোটেও দেখাতো না।
তবে ধীরে ধীরে এই অবস্থা পাল্টাতে থাকে। ১৯১৩ সালে আমেরিকান সংসদে বাবা দিবসকে ছুটির দিন ঘোষণা করার জন্য একটা বিল উত্থাপন করা হয়। তবে ১৯৬৬ সাল থেকে সারা বিশ্বে জুন মাসের তৃতীয় রোববার বাবা দিবস হিসেবে পালন করা হয়।
করোনা অতিমারীর ধাক্কা মোকাবিলায় বিশ্ব জুড়েই চলছে টিকে থাকার লড়াই। বাংলাদেশেও এর প্রভাব পড়েছে ব্যাপকভাবে। অনেকটা থমকে গেছে শিক্ষাঙ্গন। বিশ্ব বাবা দিবসে সকল বাবাদের প্রতি বিনম্র শ্রদ্ধা। আর যে বাবারা আমার বাবার মত না ফেরার দেশে তাদের জন্য মহান রাব্বুল আল আমিনের দরবারে প্রার্থনা আপনার রহমতের ছায়াতলে তাদের আশ্রয় দান করুন।
তাই বাবা দিবসে সকল সন্তানের প্রার্থনা হউক পৃথিবীতে তারা ভালভাবে শ্রদ্ধা ও ভালবাসায় টিকে থাকুক। যারা পৃথিবী ছেড়ে চলে গেছেন তাদের আত্মা শান্তিতে থাকুক।

সংবাদটি শেয়ার করুন

মন্তব্য করুন

মন্তব্য

দৈনিক হুংকারে প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।


error: দৈনিক হুংকারে প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।